বুধবার, এপ্রিল 14, 2021

বিজেপিকে তীব্র আক্রমণ মমতার
বিজেপিকে তীব্র আক্রমণ মমতার

বিজেপিকে তীব্র আক্রমণ মমতার

  • scoopypost.com - Mar 02, 2020
  • অমিত সফরে ছিলেন চুপ। দেখা যায়নি রাস্তায় কোনও সমর্থককেও। অভিযোগ অমিত পথে খুলে নেওয়া হয়েছিল একাধিক নাগরিক আইন বিরোধী ব্যানার-হোর্ডিং। এসবের জেরে শুনতে হয়েছে বাম-কংগ্রেসের সমালোচনা। জবাব দেওয়ার দায় ছিল। দিলেন, নেতাজি ইন্ডোরস্টেডিয়ামে দলীয় সভায়।স্বমূর্তিতে, স্বমেজাজে আজ সোমবার দেখা গেল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে।

    নিজের দলের বিভিন্ন স্তরের নেতে-কর্মীকে বার্তা তো দিলেনই, সেই সঙ্গে চরম সমালোচনা করলেন কেন্দ্রের বিজেপি সরকারকে। নাম না করে তুলোধনা করলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে। এদিন তিনি স্পষ্ট ভাষায় দিল্লির ঘটনাকে পরিকল্পিত খুন বলে উল্লেখ করেন। দিল্লিতে হিংসার ঘটনায় দিল্লি পুলিশ নীরব দর্শকের ভূমিকা নিয়েছিল বলেও মন্তব্য করেন তৃণমূল নেত্রী।দিল্লির পুলিশ কেন্দ্রীয় সরকারের অধীন, এর পাশাপাশি তাদের হাতে রয়েছে সমস্ত সশস্ত্র বাহিনী। সব কিছু থাকে স্বত্ত্বেও দিল্লিতে এত মানুষের প্রাণ যায় কী করে? প্রশ্ন তোলেন মমতা। তিনি বলেন, পরিকল্পিত ভাবে হত্যা লীলা চালিয়ে তাতে সাম্প্রদায়িক রঙ লাগানো হয়েছে।দিল্লির সাতটি লোকসভা আসন যাদের হাতে তারা কী করছিল, কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে যারা একাধিকবার ঘৃণা ছড়িয়েছে। এতবড় ঘটনা ঘটে যাওয়ার পরও দুঃখ প্রকাশ না করে ক্ষমতা দখলের আস্ফালন করা হল। যারা দিল্লির মতো একটা ছোত রাজ্য সামলাতে পারে না তারা চালাবে দেশ?তৃণমূল নেত্রীর অভিযোগ যেসব রাজ্যে তারা ক্ষমতায় আছে সেখানেই তারা মানুষকে হিংসা উপহার দিয়েছে।

    নিজের রাজ্যের পরিস্থিতি নিয়ে বিজেপি সরকারকে প্রায় চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেন তিনি। মমতা বলেন, এই রাজ্যে আইন শৃঙ্খলা অনেক ভাল। অথচ বিভিন্ন রাজ্যে বাঙালিদের ওপর অত্যাচার করা হচ্ছে। তিনি বলেন , এ রাজ্যে মানুষ মানবিকতার সঙ্গে, পরস্পর মিলেমিশে বসবাস করেন

    বিজেপির পাশাপাশি নিজের দলের নেতা-কর্মীদের জন্যো তিনি গুচ্ছ পরামর্শ দেন। মানুষের কাছে আরও বিনয়ী, নম্র হতে হবে। কোনও অবস্থাতেই আইন নিজের হাতে তুলে নেওয়া যাবে না। গরিব মানুষকে অবহেলা করা যাবে না। বিজেপির প্ররোচনায় পা দেওয়া যাবে না।বেআইনি কাজ করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে