সোমবার, অক্টোবর 26, 2020

কুল গ্যাজেটস ২০১৯
কুল গ্যাজেটস ২০১৯

কুল গ্যাজেটস ২০১৯

  • scoopypost.com - Dec 31, 2019
  • ২০২০ সালে আরও এগিয়ে যাবে প্রযুক্তি। নিত্যনতুন গ্যাজেট আর গিয়ারের আবিষ্কারে আরও সহজ ও আরামদায়ক হবে রোজকার দিনযাপন। বিদায় নেওয়ার আগে ২০১৯-ও আমাদের দিয়ে গেছে বেশ কিছু ‘কুল’ গ্যাজেট। একনজরে দেখে নেওয়া যাক এ বছরের সাড়া ফেলে দেওয়া কিছু নামী-দামী গ্যাজেট।

    লেনোভো স্মার্ট ক্লক উইথ গুগল অ্যাসিস্ট্যান্ট

    ইন্টারঅ্যাকটিভ স্ক্রিন আর গ্যাজেট এখন ঘরে ঘরে। অ্যামাজন অ্যালেক্সা বা গুগল অ্যাসিস্ট্যান্টের সঙ্গে আড্ডা মারা, কথা বলা এখন ইন থিং। লেনোভোর তৈরি এখ স্মার্ট ঘড়িটির বৈশিষ্ট্য হচ্ছে এর সারল্য বা সিম্পলিসিটি। এই স্মার্ট ঘড়িটি টিভি স্ট্রিমিং বা ভিডিও কনফারেন্সিং হয়তো করতে পারে না। কিন্তু সময় বলে দেওয়া, ফোন চার্জ করা থেকে শুরু করে গুগল অ্যাসিস্ট্যান্টের সাহায্যে রিমাইন্ডার দেওয়ার মত কাজ করতে দক্ষ এই ঘড়ি। ভোরে সুমধুর অ্যালার্ম টোন বেজে থেমে যাওয়ার আগে নিজে খেকেই স্ক্রিনের আলো বাড়িয়ে আপনাকে বিছানা থেকে তোলার কাজও করতে পারে চালাকচতুর এই ঘড়িটি। দাম আনুমানিক ৫৫০০ টাকা।

    উইথিংস মুভ অ্যাকটিভিটি অ্যান্ড স্লিপ ওয়াচ 

     

    উইথিংস মুভ অ্যাকটিভিটি অ্যান্ড স্লিপ ওয়াচ কিন্তু দারুণ একটি গ্যাজেট। এই স্মার্টওয়াচটি আপনার দৈনিক শারীরিক কসরত ট্র্যাক করতে সক্ষম। কতটা হাঁটলেন, দৌড়লেন, পরিশ্রম করলেন এ সবই মাপতে পারে এই আশ্চর্য ঘড়ি। এর সবচাইতে নজরকাড়া বৈশিষ্ট্য হল দিনে আপনি কতটা ঘুমোলেন তাও বলে দেবে এটি। জিপিএস ট্র্যাকার ও হেলথ মেট অ্যাপের সাহায্যে প্রয়োজনের থেকে বেশি না কম ঘুম হচ্ছে তাও ঠিক করে দেবে এই ঘড়ি। ব্যাটারি না বদলে একটানা ১৮ মাস কর্মক্ষম থাকতে পারে উইথিংস মুভ অ্যাকটিভিটি অ্যান্ড স্লিপ ওয়াচ। নিজের পছন্দমতো এর ডায়াল ও ইন্টারফেস পাল্টাতে পারেন ব্যবহারকারীরা। দাম আনুমানিক ৫০০০ টাকা।

    এম্বার টেম্পেরাচর কন্ট্রোল মাগ

    যাঁদের সকাল বা সন্ধ্যায় এক কাপের বদলে দু তিন কাপ উষ্ণ চা-কফিতে মজে থাকেন, তাঁদের জন্যে আশীর্বাদ এই গ্যাজেট কাপ। বারবার স্টোভে, মাইক্রোওয়েভে চা-কফি গরম করার কোনও প্রয়োজনই হবে না, এই টেম্পেরাচর কন্ট্রোলড মাগ হাতের কাছে থাকলে। একটি মোবাইল অ্যাপের সাহায্যে ব্লুটুথ কানেক্টেড এই মাগ বা কাপ নিজে থেকেই পানীয় গরম করতে ওস্তাদ। চাইলে সঙ্গে করে যেকোনও জায়গায় এই মাগ নিয়েও যেতে পারেন। দাম প্রায় ৮০০০ টাকা।

    বোস ফ্রেমস অডিও সানগ্লাসেস 

    বিশ্বের উৎকৃষ্ট অডিও ইকুইপমেন্ট তৈরির নামজাদা সংস্থা বোস কর্পোরেশন। তাদেরওই তৈরি এই অডিও সানগ্লাস। কেতাদুরস্ত এই সানগ্লাস যেমন আপনার স্টাইল স্টেটমেন্টের দিকেও খেয়াল রাখে, তেমনি এর সঙ্গে লাগানো ইন্টিগ্রেটেড ওয়্যারলেস ইয়ারবাডস অসামান্য শব্দের জাদুতে আপনাকে আচ্ছন্ন করে রাখতে সক্ষম। স্মার্টফোন থেকে ব্লুটুথের মাধ্যমে গান শুনতে পারেন এই সানগ্লাস পরলেই। আলাদা কোনও হেডসেট বা ইয়ারবাডের প্রয়োজনই নেই। সবচাইতে দারুণ ব্যাপার হল বাইরে থেকে কেউ বুঝতেই পারবে না আপনি গান বা মিউজিক শুনছেন। মোটামুটি ১৪০০০ টাকায় কিনে ফেলতে পারেন এই দারুন টু-ইন-ওয়ান সানগ্লাস।

    এলজি সিগনেচার ওলেড টিভি আর-নাইন

    কেমন হত যদি আপনার ড্রইংরুমে থাকা অত্যাধুনিক টিভিটিকে রোল করে আপনার সঙ্গে রাখতে পারতেন? এলজি নিজে এই ওলেড টেলিভিশনের নাম দিয়েছে ডিস্যাপিয়ারিং অর্থাৎ অদৃশ্য টিভি। এই টিভিটির স্ক্রিন ৬৫ ইঞ্চি পর্যন্ত বাড়ানো যেতে পারে। টিভি দেখার পর ইচ্ছে হলে একটি কমপ্যাক্ট বক্সে গুটিয়ে পুরে নেওয়াও যায়। ফোর-কে এইচডিআর স্মার্ট টিভি দেখার এক্সপিরিয়েন্সও পাওয়া যাবে এই টিভিতে। গুগল অ্যাসিস্টান্ট ও অ্যালেক্সার মাধ্যমে পছন্দমতো কনটেন্ট দেখতে পারেন এই স্মার্ট টিভিতে। ড্রইংরুমের আকার আয়তন অনুযায়ী ছোট-বড় করতে পারেন টিভির দৈর্ঘ্য-প্রস্থ। ভারতেও পাওয়া যাচ্ছে এলডি-র এই টিভি।

    হার্লে ডেভিডসন লাইভওয়্যার মোটরবাইক

    পূথিবীর দূষণ কমাতে বিশ্বের ছোটবড় সব গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থাই ই-ভি বা ইলেকট্রিক ভিইক্যলের দিকে ঝুঁকছে। আমেরিকার নামজাদা মোটরবাইক প্রস্তুতকারক সংস্থা হার্লে ডেভিডসনও তার ব্যতিক্রম নয়। লাইভওয়্যার মোটরবাইকে প্রথাগত গ্যাসোলিন ইঞ্জিনের বদলে লাগানো হয়েছে অত্যন্ত শক্তিশালী একটি ইলেকট্রিক মোটর। নজরকাড়া আর্বান স্ট্রিট ডিজাইনের দারুণ শক্তিশালী এই ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল পাওয়া যাচ্ছে এ দেশেও। এতে কোনও ক্লাচ নেই, নেই গিয়ার বদলানোর ঝঞ্ঝাটও। পুরোটাই অটোমেটিক। তবে দামটা একটু বেশি তো পড়বেই। প্রি অর্ডার ফর্ম ভরেহার্লে ডেভিডসন সংস্থার ওয়েবসাইটে গিয়ে এই বাইকটি কেনা যাবে।