মঙ্গলবার, অক্টোবর 27, 2020

সুন্দরী ‘কমলা’ পাতে
সুন্দরী ‘কমলা’ পাতে

সুন্দরী ‘কমলা’ পাতে

  • scoopypost.com - Jan 21, 2020
  • কমলা রঙের, গোল গোল। রসে টইটম্বুর। হ্যাঁ শীতের কমলালেবু। স্বাদে, গন্ধে অতুলনীয়।গুণপণা যার রসে রসে।

    খোসা ছাড়িয়ে কমলালেবুর কোয়া মুখে দিলেই শীত শীত আমেজটা বেশ জবরদস্ত হয়। শরীর ভাল রাখতে অরেঞ্জ জুসও আজকাল আধুনিক বাঙালির ব্রেকফাস্ট টেবিলে থাকে।কিন্তু এখানেই বা থেমে থাকেন কেন! এত সুন্দর যে ফল তা দিয়ে বানিয়ে ফেলুন রকমারি দেশি-বিদেশি ডিস। আসলে আমাদের হাতে সময় বড় কম। শুধুই যে শীতকাল। তারপর আর কমলালেবু কোথায়?

    অরেঞ্জ ক্রিপ সুজেট

    খাবারটা ফ্রেঞ্চ। কিন্তু একটু তলিয়ে দেখলে, এর সঙ্গে বাঙালি খাবারের দিব্য মিল পাবেন। এরসঙ্গে বরং অরেঞ্জ বা কমলালেবুর শস মিশিয়ে একটু ফিউশন করে নিন। ভালই লাগবে।

    কীভাব করবেন- ময়দা, দুধ, ডিম ও মাখন পাতলা করে গুলে নিন। এতে দিন স্বাদমতো নুন।এবার ননস্টিক তাওয়ায় মাখন বা তেল ব্রাশ করে ব্যাটারটা দিয়ে দিন। তারপর হাতার পেছন দিয়ে পাতলা করে গোলা রুটির মতো বানিয়ে ফেলুন।ডিম থাকায় এটা হবে ক্রিস্পি।এই খাবারকে বলা হয় ক্রিপ বা ক্রেপ।

    এবার পালা কমলালেবুর কেরামতির। বেশ কয়েকটা কমলালেবু ছাড়িয়ে রস করে নিন। কড়াইতে কমলালেবুর রস, চিনি ও সল্টেড বাটার দিয়ে একটু ঘন করে ফুটিয়ে নিন।এরপর একটা থালায় ক্রিপটা দিয়ে কমলালেবুর রস মাখিয়ে রুমালের মতো ভাঁজ করে নিন। যে কড়াইতে কমলার রসটা ফুটিয়ে শস বানিয়েছেন, তাতে ভাঁজ করা ক্রিপগুলো দিয়ে মিডিয়াম আঁচে মিনিট পাঁচ-সাতেক ফুটিয়ে নিন যাতে অরেঞ্জ শস ক্রিপের ভেতরে ঢুকে আরও নরম হয়। ওপর থেকে পিলার দিয়ে কমলালেবুর খোসা একটুখানি ক্রিপের মধ্যে দিয়ে দিন। এতে গন্ধটা বেশ ভাল হবে। একটু ঠাণ্ডা হলে কমলালেবুর স্লাইস দিয়ে পরিবেশন করুন অরেঞ্জ ক্রিপ সুজেট।

     অরেঞ্জ চিকেন

    চিকেন হেলথি, আর বড় থেকে ছোট সকলেরই ফেভারিট।এবার কমলালেবুর ছোঁয়া দিয়ে একটু হাটকে চিকেন বানিয়ে ফেুলন দেখি।বাড়ির কর্তা, ছোট সদস্যটি সকলেই হাত চেটে খাবে।

     কীভাবে করবেন- বোনলেস চিকেন টুকরো করে নিন। এবার ময়দা, কর্নফ্লাওয়ার, স্বাদমতো নুন, গোলমরিচ, ডিম ফেটিয়ে, মাপমতো জল দিয়ে একটা ব্যাটার বানান।খুব পাতলা খুব ঘন হবে না।এবার চিকেনগুলো ব্যাটারে ডুবিয়ে অন্তত ৩০ মিনিট ঢাকা দিয়ে রেখে দিন। তারপর ডুবো তেলে ভেজে নিন চিকেনের টুকরো।

    এবার বানাতে হবে গ্রেভি। ননস্টিক তাওয়ায় সাদা তেল নিয়ে তার মধ্যে দিন আদা, রসুন কুঁচি ও চিলি ফ্লেক্সি। হালকা নাড়িয়ে তাতে দিয়ে দিন কমলালেবুর রস, ভিনিগার, শোয়াশস, সামান্য জল। ভাল করে ফোটাতে থাকুন। স্বাদমতো নুন দিন।যেহেতু কমলালেবুর রস দেওয়া হচ্ছে তাই এতে একটু বেশি চিনি লাগবে। চিনির বদলে মধুও ব্যবহার করতে পারেন।মিষ্টির ব্যাপারটা আপনার স্বাদমতো।শেষে ঠাণ্ডা জলে কর্নফ্লাওয়ার গুলে মিশিয়ে দিন। মিশ্রনটা একটু ঘন হলে ভেজে রাখা চিকেনের টুকরো গুলো দিয়ে টস করে নিন।শেষে ছড়িয়ে দিন কমলালেবুর খোসা। রেডি অরেঞ্জ চিকেন।ফ্রায়েড রাইসের সঙ্গে দিব্যি লাগবে এই চিকেন।

    স্নো অরেঞ্জ

    এই খাবারটা ডেজার্ট হিসাবে অসাধারণ। ঝঞ্ঝাটও খুব বেশি নয়।

    কীভাবে করবেন- দুধ ভাল করে ফুটিয়ে ঘন করে কনডেনস্ড মিল্ক মিশিয়ে নিন।একটু বেশি মিষ্টি হলে অসুবিধে নেই। ঠাণ্ডা করে রাখুন।

    এবার কমলালেবু একটা পাশ থেকে গোল করে কেটে নিন। চামচ দিয়ে ভেতর থেকে কোয়া গুলো বের করে নিন। কমলালেবুটা একটা বাটির মতো হয়ে যাবে। তবে কোনও অংশই ফেলবেন না।কাটা অংশটা ঢাকা দিতে লাগবে।

    এবার কমলালেবুর কোয়া গুলো চটকে রস বের করে ছেঁকে নিন। তার সঙ্গে মিশিয়ে দিন ফুটিয়ে রাখা ঠাণ্ডা দুধ।ফ্রিজে রেখে দিন ঘণ্টা দুয়েকের জন্য। এরপর ফ্রিজ থেকে যখন বের করবেন দেখা যাবে আইসক্রিমের মতো সেটা জমে গিয়েছে। কাঁটা চামচ দিয়ে ভাল করে মিশ্রনটা ফেটিয়ে তার মধ্যে দিয়ে দিন কাজু বাদামের টুকরো। এরপর ফ্যাটানো মিশ্রনটা কমলালেবুর বাটিতে ভরে ফেলুন। ওপর থেকে ছড়িয়ে দিন চকো চিপস। তারপর কেটে রাখা কমলালেবুর অংশটা ঢাকা দিয়ে ডিপ ফ্রিজে কিছুক্ষণ রেখে দিন। হালকা জমে গেলেই পরিবেশন করুন স্নো অরেঞ্জ।