সোমবার, মার্চ 08, 2021

সকাল থেকে রাত, ব্রকোলি পাতে থাক
সকাল থেকে রাত, ব্রকোলি পাতে থাক

সকাল থেকে রাত, ব্রকোলি পাতে থাক

  • scoopypost.com - Nov 29, 2020
  • ইউরোপ, মার্কিন মুলুক-ভারতে নাম তার ব্রকোলি। গ্রাম বাংলায় সবুজ কপি।

    প্রোটিন, ফাইবার ও ভিটামিনে সমৃদ্ধ সবুজ রংয়ের এই কপি বা ব্রকোলি শীতের অন্যতম সবজি।যাঁরা ডায়েট করেন তাঁরা তো বটেই, শরীর সুস্থ রাখতে ব্রকোলির জুড়ি মেলা ভার বলছেন পুষ্টিবিদরা। ব্রেকফাস্ট থেকে লাঞ্চ, সন্ধের স্ন্যাক্স থেকে ডিনার ব্রকোলি খাওয়া যায় সারা দিন বিভিন্ন মেনুতে। সকাল থেকে রাতের এমনই কয়েকটি রেসিপি রইল এখানে।

     

    ব্রকোলি স্যুপ

    শীতের সকাল গরমাগরম স্যুপ দিয়ে শুরু করলে বোধহয় দিনটাই জমে যায়।
    এ জন্য প্রথমে ব্রকোলির ফুল গুলো কেটে ধুয়ে নিন। এবার কড়াইতে একটু সাদা তেল ও বেশি করে মাখন দিন। মাখন গরম হবে কিন্তু পুড়বে না। তাতে দিয়ে দিন কুঁচানো পেঁয়াজ ও রসুন। একটু স্যতে করার পর দিন ব্রকোলি। মিডিয়াম আঁচে নাড়তে থাকুন। দিয়ে দিন স্বাদমতো নুন। ব্রকোলি নরম হয়ে গেলে ভেজিটেবল স্টক দিয়ে ভালো করে ফুটিয়ে নিন। যদি হ্যান্ড ব্লেন্ডার থাকে তাহলে কড়াইতে ব্রকোলি, পেঁসাজ স্ম্যাস করে নিন। না থাকলে ছাঁকনি দিয়ে ব্রকোলি, পেঁয়াজ ছেঁকে মিক্সিতে বেটে নিন। তারপর সেটা আবার ভেজিটেবল স্টকে মিশিয়ে ফোটান। দিয়ে দিন দুধ। বেশ কিছুক্ষণ ফুটে একটু ঘন হয়ে গেলে ওপর থেকে ক্রিম ছড়িয়ে নামিয়ে নিন। আমন্ড কুঁচি রোস্ট করে ওপর থেকে ছড়িয়ে পরিবেশন করুন।


    ব্রকোলির ড্রাই সবজি

    লাঞ্চে শুধুই এটা খেতে পারেন ডায়েট করলে। ভাতের সঙ্গে বা রুটির সঙ্গেও পারেন।
    ব্রকোলি ছোট টুকরো করে কেটে গরম জলে নুন দিয়ে মিনিট পাঁচেক ভাপিয়ে জল ঝরিয়ে নিন।কড়াইতে অলিভ অয়েল দিয়ে আমন্ড কুঁচি ও পনির কিউব হালকা স্যতে করে তুলে নিন। তেলে দিয়ে আদা ও রসুন কুঁচি। হাল্কা ভাজার পর দিন পেঁয়াজ কুঁচি। মিনিট দুয়েক ভেজে দিন সুইট কর্ন, ব্রকোলি, ক্যাপসিকাম ও টমটো।নুন ও ভাজা মশলা দিয়ে হাল্কা নাড়াচাড়া করুন কিছুক্ষণ। তারপর পনির ও বাদাম দিয়ে আরও কিছুক্ষণ নাড়াচাড়া করে নামিয়ে নিন।


    ব্রকোলি মালাই তন্দুর

    সন্ধেটা জমে যাবে ব্রকোলি তন্দুরে।
    ব্রকোলি কেটে নুন দিয়ে জল ভাপিয়ে নিন দু’মিনিট। দই থকে জল ঝরিয়ে একেবারে শুকনো করে হ্যাংকার্ড তৈরি করুন। দইয়ের মধ্যে দিন সাদা জিরে গুঁড়ো, ধনে গুঁড়ো, গরম মশলা গুঁড়ো, আদা ও রসুন কুঁচি, স্বাদ মতো নুন, ক্রিম। ভালো করে মাখিয়ে নিন। যোগ করুন সরষের তেল ও সাদা তেল। মিশ্রনটা ব্রকোলিতে মাখিয়ে অন্তত এক ঘণ্টা রেখে দিন।
    এরপর তন্দুর প্যানে বাটার ব্রাশ করে ব্রকোলিগুলো তন্দুর করে নিন বা ওভেনে বেক করে নিন। গরম অবস্থায় চাট মশলা ছড়িয়ে পাতি লেবু ও পেঁয়াজ দিয়ে পরিবেশন করুন।


    আলু ব্রকোলি

    কড়াইতে তেল দিয়ে ছোট করে কাটা আলু নুন ও হলুদ দিয়ে ভেজে নিন। ভেজে নিন ব্রকোলিও। তারপর গরম মশলা ফোড়ন দিন, পেঁয়াজ কুঁচি ভেজে নিন। দিয়ে দিন আদা রসুন বাটা। মশলা ও পেয়াঁজ কষানো হলে দিন অল্প করে টমটো।দিন ধনে ও জিরে গুঁড়ো। কষিয়ে নেওয়ার পর আলু ও ব্রকোলি দিয়ে ভালো করে মাখিয়ে গরম জল ঢেলে সেদ্ধ হতে দিন। ঢিমে আঁচে ঢাকা দিয়ে রান্না করুন। বেশ কিছুক্ষণ ওপর থেকে তেল ছাড়তে শুরু করলে নামিয়ে নিন।