মঙ্গলবার, মে 11, 2021

সরোবরে ছটপুজো নয়ঃ সুপ্রিম কোর্টে কেএমডিএ!
সরোবরে ছটপুজো নয়ঃ সুপ্রিম কোর্টে কেএমডিএ!

সরোবরে ছটপুজো নয়ঃ সুপ্রিম কোর্টে কেএমডিএ!

  • scoopypost.com - Sep 18, 2020
  • কোনওভাবেই রবীন্দ্র সরোবরে ছটপুজো করা যাবে না। কেএমডিএ-র আবেদন খারিজ করে সাফ জানিয়ে দিয়েছে গ্রিন ট্রাইবুনাল। গ্রিন ট্রাইবুনালের বক্তব্য, রবীন্দ্র সরোবরের বাস্তুতন্ত্র বজায় রাখতে এবং পরিবেশ বাঁচাতে ছট বা অন্য কোনও পুজোর অনুমতি দেওয়া যাবে না।

    গত বছর রবীন্দ্র সরোবরে ছট পুজো করার অনুমতি না থাকায়, সেখানে তালা দিয়ে রাখা হয়েছিল। তবে, তালা দিয়েও ছটপুজো আটকানো যায় নি। উলটে সেখানে পুজো করা নিয়ে আইনশৃঙ্খলার অবনতি হয়। সেই পরিস্থিতি এড়াতে এবার আগে থেকেই প্রস্তুতি নেয় কেএমডিএ। তারা গ্রিন ট্রাইবুনালের কাছে রবীন্দ্রসরোবরে ছট পুজোর অনুমতি চেয়ে আইনমাফিক আবেদন করে। গ্রিন ট্রাইবুনাল সে আবেদন খারিজ করে দেওয়ায় এবার সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হওয়ার কথা ভেবেছে কেএমডিএ। 

    পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম জানিয়েছেন,  তাঁরা একদিনের জন্য রবীন্দ্র সরোবরে ধর্মীয় আচার পালনের অনুমতি চেয়েছিলেন। সে আবেদন খারিজ হয়ে যাওয়া দুর্ভাগ্যের। মানুষের ধর্মীয় বিশ্বাস বা ধর্মাচরণে বাধা দেওয়া ঠিক নয় বলেও মন্তব্য করেন তিনি। 

    পরিবেশকর্মী সুভাষ দত্ত জানিয়েছেন, গ্রিন ট্রাইবুনালের সিদ্ধান্তে তাঁরা খুশি। পরিবেশ কর্মী হিসেবে ট্রাইবুনালের এই সিদ্ধান্তকে তাঁরা স্বাগত জানাচ্ছেন। সুভাষবাবুর অভিযোগ, সরকার পুরোপুরি রাজনীতি করছে। গ্রিন ট্রাইবুনালের নির্দেশ মেনে চলার পরিবর্তে তারা তা ভেঙে ফেলতে চাইছে।

    একই অভিযোগ করেছেন বিজেপি নেতা শমীক ভট্টাচার্য। তিনি বলেন এই পদক্ষেপ সরকারের  নির্লজ্জ রাজনৈতিক সিদ্ধান্ত। তারা ভোটের আগে এ রাজ্যের অবাঙালি ভোটের কথা মাথায় রেখে এই পদক্ষেপ করছে। গ্রিন ট্রাইবুনাল সরকারকে রবীন্দ্রসরোবরের পরিবর্তে ছট পুজোর জন্য বিকল্প জায়গা ঠিক করতে বলেছিল। সরকার তা না করে ভোটের মুখে বিভাজনের রাজনীতি করছে। এখন দেশের শীর্ষ আদালতের কাছে রবীন্দ্রসরোবরে ছটপুজোর আবেদন জানানো ছাড়া কেএমডিএ-র কাছেও অন্যকোনও বিকল্প নেই।