রবিবার, অক্টোবর 25, 2020

ইয়ামাহার 'তিনমূর্তি'
ইয়ামাহার 'তিনমূর্তি'

ইয়ামাহার 'তিনমূর্তি'

  • scoopypost.com - Dec 20, 2019
  • একশো সিসির নন গিয়ারড স্কুটারের বাজারে প্রবল প্রতিদ্বন্দ্বিতা এবার ঢুকে পড়ল ১২৫ সিসির বাজারেও। অ্যাপ্রিলিয়া, টিভিএস, সুজুকি, হন্ডা, হিরো মটোকর্পের পর এবার নন গিয়ারড ১২৫ সিসির তিনটি নতুন মডেল বাজারে আনল ইয়ামাহাও।
    ফ্যাসিনো, রে জেড মডেল লাইন আপে এই নতুন তিনটি স্কুটার লঞ্চ করল জাপানি অটোমোবাইল জায়ান্ট ইয়ামাহা।
    ফ্যাসিনো ওয়ান টোয়েন্টি ফাইভ এফ আই, রে জেড আররে জেড আর স্ট্রিট ব়্যালি তিনটি স্কুটারই বি-এস সিক্স দূষণবিধি মেনে তৈরি করা হয়েছে। ফ্যাসিনো মডার্ন রেট্রো লুক স্কুটার যাতে ড্রাম ও ডিস্ক দুইয়েরই সুবিধে থাকবে। তবে, ড্রাম ব্রেক ও ডিস্ক ব্রেকের মধ্যে অবশ্যই দামের ফারাক আছে। স্ট্যান্ডার্ড ও ডিলাক্স দুটি মডেলের মধ্যে ফিচারস অনুযায়ী দামের তারতম্য হাজার দুয়েক টাকার। ফ্যাসিনোর পুরনো মডেলের থেকে ডিজাইন ও লুকসে কিছুটা পার্থক্য আছে ফুয়েল ইনজেক্টেড ফ্যাসিনো এয়ান টোয়েন্টি ফাইভের ।পিছনের প্যানেল আগের থেকে অনেকটাই কার্ভড। সেইসঙ্গে নতুন রিয়ার টেল ল্যাম্প। তবে, ফার্সট জেনারেশন ফ্যাসিনোর থেকে নতুন ফ্যাসিনোয় রিয়ার টায়ারের মাপ বদলে একশো দশ মিলিমিটার করা হয়েছে। নতুন ফ্যাসিনোয় পাওয়ার আউটপুট ও টর্ক বেড়ে হয়েছে যথাক্রমে ৮.২ বিএইচপি ও ৯.৭ নিউট্রন মিটার। ইয়ামাহা দাবি করছে ফ্যাসিনোর নতুন তিনটি মডেলই আগের থেকে অনেক বেশি ফুয়েল এফিশিয়েন্ট। এক লিটারে ৫৮ কিলোমিটার যেতে পারবে ফ্যাসিনো, সংস্থার ওয়েবসাইটেও এমনটাই দাবি।
    ফ্যাসিনোর পাশাপাশি ইয়ামাহা রে জে়ড ওয়ান টোয়েন্টিফাইভ ও রে জেড ওয়ান টোয়েন্টি ফাইভ স্ট্রিট ব়্যালি নামেও দুটি একশো পঁচিশ সিসির অটোমেটিক স্কুটার বাজারে এনেছে। ফ্যাসিনোর ইঞ্জিনের সঙ্গে রে জেড-এর দুটি ভ্যারিয়ান্টের ইঞ্জিনের কোনও ফারাক নেই। সেই একই ফুয়েল ইনজেক্টেড একশো পঁচিশ সিসির নতুন ইঞ্জিন।রে জেড ও রে জেড স্ট্রিট ব়্যালি দুটি স্কুটারই ডিজাইনের দিক থেকে ফ্যাসিনোর থেকে সম্পূর্ণ আলাদা। রে জেড মডেলের স্কুটারটি স্টার্ট করার সময় একেবারেই আওয়াজ করে না। সেইসঙ্গে এতে স্টার্ট স্টপ সিস্টেমও যুক্ত করা হয়েছে। দুটি স্কুটারকেই স্পোর্টি লুক দেওয়া হয়েছে। রে জেড স্ট্রিট ব়্যালি ইয়ামাহার রেসিং ডিএনএ বেস করে তৈরি। এই স্কুটারটিতে ফ্রন্ট ও রিয়ার ক্র্যাশ গার্ড লাগানো রয়েছে। এখনও স্কুটার দুটির দাম প্রকাশ করেনি ইয়ামাহা। তবে, এই সেগমেন্টে পয়লা নম্বরে থাকা হোন্ডা অ্যাকটিভা ওয়ান টোয়েন্টি ফাইভের থেকে দাম কম রাখা হবে বলে সংস্থার এক সূত্রের দাবি। কারণ, অন্যান্য গাড়ি নির্মাতা সংস্থাগুলির মতই নন গিয়ার্ড স্কুটারের বাজারে হোন্ডাকে মাত করতে তাদের বিজনেস স্ট্র্যাটেজি ও প্ল্যান সাজাচ্ছে ইয়ামাহা।